মোট দেশজ উৎপাদন (Gross Domestic Product – GDP)

একটি দেশ অর্থনৈতিক দিক থেকে কতটা সবল বা কতটা শক্তিশালী এগুলো জানতে হলে, আমাদের ওই দেশের মোট দেশজ উৎপাদন বা জিডিপি, মোট জাতীয় উৎপাদন বা জিএনপি এবং মাথাপিছু আয় সম্পর্কে জানতে হবে। এগুলোকে অর্থনীতির ভাষায় অর্থনৈতিক নির্দেশক বলা হয়। 

মোট দেশজ উৎপাদন (Gross Domestic Product)

একটি দেশের ভৌগোলিক সীমানার ভিতরে অবস্থানরত মানুষ (ঐ দেশ বা অন্য দেশের নাগরিক) দ্বারা উৎপাদিত পণ্য বা সেবার মোট বাজার মূল্য হল মোট দেশজ উৎপাদন (GDP)। মনে করি, আমাদের দেশে ব্যবসা করার জন্য ভারত হতে কোন এক কোম্পানি আসলো। সেই কোম্পানির একবছরে উৎপাদিত পণ্যের মোট বাজার মূল্য আমাদের দেশের মোট দেশজ উৎপাদনে যুক্ত হবে। 

GDP এর সূত্রটি হলো- GDP = C+I+G

এখানে, C=Consumption I=Investment G=Government cost;

অর্থাৎ, জি ডি পি = ভোগ+বিনিয়োগ+সরকারি ব্যয়

আমরা একটা উদাহরণ দেখলে সহজেই বুঝতে পারবো;

ধরি, ভোগ ব্যয় C = ১০০$, বিনিয়োগ ব্যয় I = ২০০$, সরকারি ব্যয় G = ৩০০$

সূত্র অনুসারে,

GDP = C+I+G 

         = (১০০+২০০+৩০০) $

         = ৬০০$

একটি দেশের জিডিপি সম্পর্কে জানতে পারলে আমরা ওই দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা সম্পর্কে সহজে জানতে পারি। তাছাড়া জিডিপির মাধ্যমে একটি দেশকে আরেক দেশ থেকে অর্থনৈতিক দিক থেকে আলাদা করা যায়। আমাদের দেশে বর্তমানে জিডিপি বৃদ্ধির হার হচ্ছে 7.86 শতাংশ। আমাদের দেশে ক্রমাগত আগের বছরের তুলনায় জিডিপি বৃদ্ধি পাচ্ছে। আমরা একটা গ্রাফ দেখলে সহজেই জিডিপি বৃদ্ধির হার সম্পর্কে ধারণা পাবো-

ক্রাশ স্কুলের নোট গুলো পেতে চাইলে জয়েন করুন আমাদের ফেসবুক গ্রুপে-

www.facebook.com/groups/mycrushschool

অতিথি লেখক হিসেবে আমাদেরকে আপনার লেখা পাঠাতে চাইলে মেইল করুন-

write@thecrushschool.com

S.M. Riazul Karim Shishir

Studying in the Department of Economics, Faculty of Social Science, Sheikh Hasina University. A Person Who Believes in Positive Thinking.